‘ডাবল সেঞ্চুরি’র অপেক্ষায় মুশফিকুর রহিম 1

‘ডাবল সেঞ্চুরি’র অপেক্ষায় মুশফিকুর রহিম

টেস্টে বাংলাদেশের প্রথম ব্যাটসম্যান হিসেবে ডাবল সেঞ্চুরির কীর্তি তার। মুশফিকুর রহিমের দুটি ছাড়া বাংলাদেশের আর কারও একাধিক ডাবল সেঞ্চুরি নেই। এবার আরেকটি ‘ডাবলে’র অপেক্ষায় উইকেটকিপার এই ব্যাটসম্যান। তবে তা ওয়ানডেতে ম্যাচ খেলার।

বাংলাদেশের মাত্র দ্বিতীয় ক্রিকেটার হিসেবে ২০০তম ওয়ানডে ম্যাচ খেলার অপেক্ষায় মুশফিক। বাংলাদেশ সময় শনিবার ভোরে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজের দ্বিতীয় ওয়ানডেতে তিনি এই মাইলফলক স্পর্শ করবেন।

বাংলাদেশের হয়ে দুইশ ওয়ানডের ক্লাবে আগে থেকেই একা বসে আছেন মাশরাফি বিন মর্তুজা। গত বছরের ডিসেম্বরে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে এই মাইলফলকে পা রাখেন বাংলাদেশের ওয়ানডে অধিনায়ক। এবার তার পাশে বসবেন মুশফিক।

ওয়ানডেতে মুশফিকের পথচলা শুরু ২০০৬ সালে। হারারেতে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে অভিষেক ম্যাচে দল আগেই জিতে যাওয়ায় মুশফিকের ব্যাটিংয়ের সুযোগ হয়নি। একই কারণে ব্যাটিংয়ের সুযোগ পাননি তার পরের ম্যাচেও। তৃতীয় ম্যাচে প্রথমবার ব্যাটিংয়ের সুযোগ পেয়ে ১৯ বলে অপরাজিত ১৮ রান করে দলের জয়ে অবদান রাখেন ডানহাতি ব্যাটসম্যান।

এরপর ধীরে ধীরে ব্যাটিংয়ে বাংলাদেশের আস্থার প্রতীক হয়ে গেছেন মুশফিক। মাঝে বাংলাদেশের অধিনায়কত্বও করেছেন। এখন পর্যন্ত ১৯৯ ম্যাচে ৩৭.৭৪ গড়ে ৫ হাজার ৩৫১ রান করেছেন মুশফিক। ৩২টি ফিফটির সঙ্গে সেঞ্চুরি আছে ৬টি। একবার ৯৯, আরেকবার ৯৮ রানে আউট না হলে সেঞ্চুরির সংখ্যা বাড়তে পারত আরও।

মুশফিকের প্রথম ওয়ানডে সেঞ্চুরি ২০১১ সালে, হারারেতে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে। সবশেষ সেঞ্চুরিটি করেছেন গত বছরের সেপ্টেম্বরে দুবাইয়ে এশিয়া কাপে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে। সে ম্যাচের ১৪৪ রান তার ক্যারিয়ার সেরা ইনিংস।

স্বাভাবিকভাবেই ওয়ানডেতে বাংলাদেশের উইকেটকিপার হিসেবে সবচেয়ে বেশি ডিসমিসালের রেকর্ডও মুশফিকের।গত বছর দেশের প্রথম উইকেটকিপার হিসেবে ২০০ ডিসমিসালের মাইলফলক স্পর্শ করেন তিনি। এবার ২০০তম ম্যাচ খেলতে যাচ্ছেন।

সুত্র : রাইজিংবিডি

Add your comment

Your email address will not be published.